তারিখ : ২৫ এপ্রিল ২০১৯, বৃহস্পতিবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

ভালুকায় জমি বায়না করে প্রতারনার অভিযোগে ব্যক্তি আটক

ভালুকায় জমি বায়না করে প্রতারনার অভিযোগে ব্যক্তি আটক
[ভালুকা ডট কম : ১৫ মার্চ]
ভালুকা উপজেলার হবিরবাড়ি গ্রামে জমি বায়না ফেরৎ না দেয়ায় আটককৃত নারীকে মুচলিকা দিয়ে থানা থেকে ছাড়িয়ে নেয়ার পর নির্দিষ্ট সময় পেরিয়ে যাওয়ার পর ওই টাকা ফেরৎ না দেয়ার অভিযোগ প্রধান নাটের গুরু সিরাজ খন্দকার(৫৫)কে বৃহস্পতিবার রাতে নিজ বাড়ি থেকে পুলিশ আটক করেছে।

অভিযোগে জানাযায়,গত ২৪/১১/২০১৬ইং সালে উপজেলার হবিরবাড়ি মৌজার ৮২৫নং দাগে ৩১.৫০শতাংশ জমি ৫৫লাখ টাকা চুক্তি করে নগদ ১০লাখ টাকা দিয়ে হবিরবাড়ি গ্রামের মার্জিয়া খাতুন নামে এক নারী তার চাচাতো বোন মুর্শিদা খাতুন, মিনারা খাতুন ও আনোয়ারা খাতুনের কাছ থেকে বায়না নামা দলিল করে। পরবর্তীতে মুর্শিদা খাতুন অসুস্থ হয়ে পড়লে আরও ৫ লাখ টাকা হাত বায়না নেন। মোট ১৫লাখ টাকা নেয়ার পর মুর্শিদা গং নানা অজুহাত দেখিয়ে একাধিক বার তারিখ দিয়ে জমি রেজিস্ট্রি করে দেয়নি। পরবর্তীতে মুর্শিদা গং সেই জমি তাঁর বড় ভাই সিরাজ খন্দকারের পরামর্শক্রমে মনির উদ্দিনের কাছে ১কোটি ২০লাখ টাকা বিক্রি করে দেয়। জমি বিক্রি করার পর মার্জিয়া খাতুন তার বায়নার টাকা ফেরত দেয়ার জন্য নিজে,প্রতিবেশি শেষ পর্যন্ত ইউপি চেয়ারম্যানের কাছে নালিশ দিলেও  মুর্শিদারা ওই বায়নার টাকা ফেরত দেয়নি। মার্জিয়া খাতুন জেলা পুলিশ সুপারের কাছে অভিযোগ দায়ের করলে ঘটনার ১৩ফেব্রুয়ারী ভালুকা মডেল থানা পুলিশ মুর্শিদাকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। ১৪ফেব্রুয়ারী সন্ধ্যায় সিরাজ খন্দকার স্থানীয় মেম্বারের মধ্যস্থতায় ২মার্চ মাঝে বায়নার টাকা ফেরৎ দেয়ার শর্তে মুচলিকা দিয়ে সিরাজ খন্দকার তাঁর বোন মুর্শিদা খাতুনকে থানা থেকে ছাড়িয়ে নেন। থানা থেকে ছাড়া পাওয়ার পর ২মার্চের মাঝে মার্জিয়া খাতুনের জমির বায়নার টাকা ফেরৎ না দিয়ে উল্টো তাঁকে নানা ভাবে হুমকি দিতে থাকে। এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার রাতে সিরাজ খন্দকারকে পুলিশ তার বাড়ি থেকে আটক করে। পুলিশ সিরাজ খন্দকারকে আটক করে নিয়ে আসার পর মার্জিয়ার উপর আসাদ,শাহা, সোরহাব,শারফুল,আব্দুর রশিদ,আনোয়ারা ও ফরিদা ইয়াছমিন হামলা করে।

ভালুকা মডেল থানার এস,আই মোখলেছুর রহমান জানান,জমি বায়না করে সেই জমি তার ভাই সিরাজ খন্দকারের মধ্যস্থতায় অন্যত্র অধিক মূল্যে বিক্রি করার পর বায়নার টাকা ফেরৎ না দেয়ায় মুর্শিদাকে আটক করা হয়। সিরাজ খন্দকার টাকা দিয়ে দেয়ার শর্তে মুর্শিদাকে থানা থেকে মুচলিকা দিয়ে ছাড়িয়ে নেন পরে নির্দিষ্ট সময় পেরিয়ে যাওয়ার পর ওই টাকা ফেরৎ না দেয়ায় তাকে আটক করা হয়েছে। সিরাজ খন্দকারই পারেন এ বিষয়টির সমাধান দিতে।#





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

ভালুকা বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৫৭১ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই