তারিখ : ২০ জুলাই ২০১৯, শনিবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

নওগাঁর ১০ উপজেলায় উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত

নওগাঁর ১০ উপজেলায় উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত
[ভালুকা ডট কম : ১৮ মার্চ]
দ্বিতীয় ধাপের উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে নওগাঁয় শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট অনুষ্ঠিত হয়েছে। নির্বাচনকে ঘিরে জেলার কোথাও কোনো সংঘাতের খবর পাওয়া যায়নি। প্রার্থীরাও কেউ কোনো অভিযোগ করেননি। ভোটের অনেকটা সময় কোন কোন ভোট কেন্দ্র ছিলো ভোটার বিহীন।

নওগাঁর ১০টি উপজেলায় সোমবার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এই নির্বাচনে বিএনপি অংশ না নেওয়ায় এই ভোট ঘিরে শুরু থেকেই সাধারণ ভোটারদের মধ্যে কোনো তেমন আগ্রহ ছিল না। অংশগ্রহণ ও প্রতিযোগিতামূলক নির্বাচন না হওয়ায় এ ধরণের নিস্পৃহ ভাব আগে থেকেই ছিল। গতকাল ভোটের দিনও ভোটারদের মধ্যে সেই নিস্পৃহ ভাবই লক্ষ্য করা গেছে। বেশ কিছু ভোট কেন্দ্র সরেজমিনে ঘুরে দেখা গেছে, অধিকাংশ ভোটকেন্দ্রই ছিল প্রায় ফাঁকা। সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত শান্তিপূর্ণ পরিবেশে এই ভোটগ্রহণ চলে।

মহাদেবপুর উপজেলার হাট চকগৌরি উচ্চবিদ্যালয় কেন্দ্রে গিয়ে দেখা যায়, ভোট কেন্দ্রের বাইরে লোকজন বেশ কিছু লোকজন এলোমেলোভাবে ঘোরাফিরা করলেও কেন্দ্রের ভেতরে প্রায় ভোটরশূন্য। ভোট শুরুর ২ ঘন্টা পরেও ওই কেন্দ্রের দুটি বুথে কোনো ভোটই পড়েনি। কেন্দ্রটির প্রিসাইডিং কর্মকর্তা আবু সায়ীদ ম-ল জানান, ওই কেন্দ্রে মোট ভোটার ৪ হাজার ৭৩৫ জন। সকাল ১০টা পর্যন্ত ভোট পড়েছে ৪৮টি।

মহাদেবপুর উপজেলার আখড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও এনায়েতপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোটার উপস্থিতি ছিল খুবই কম। বেলা ১১টার দিকে আখড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে একটি বুথে সহকারী প্রিসাডিং কর্মকর্তার দায়িত্বে থাকা জেবুননেছা খাতুন জানান, ভোট শুরুর দেড় ঘন্টার পর তাঁর বুথে প্রথম ভোট পড়ে।

তবে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার স্বরসতীপুর উচ্চবিদ্যালয় কেন্দ্রে গিয়ে ভোটারদের কিছুটা উপস্থিতি দেখা যায়। নারী ভোটারের বুথগুলোতে ৬-৭ জন করে ভোটারের সারি দেখা যায়। ওই কেন্দ্রের প্রিসাইডিং কর্মকর্তা রুহুল আমীন বলেন, ওই কেন্দ্রে মোট ভোটার ৪ হাজার ৫৬০ জন। সাড়ে ১০ টা পর্যন্ত তাঁর কেন্দ্রে মোট ভোট পড়েছে ৬৪১ টি।

পত্নীতলা উপজেলার বেশ কিছু কেন্দ্র ঘুরে ভোটার উপস্থিতি অনেক কম দেখা গেছে। দুপুর ১২টার দিকে পুঁইয়া আদর্শ উচ্চবিদ্যালয় কেন্দ্রে নারী ভোটারের দীর্ঘ সারি দেখা গেছে। কেন্দ্রটির প্রিসাডিং কর্মকর্তা অসীম কুমার দাস জানান, দুপুর ১২টা পর্যন্ত তাঁর কেন্দ্রে ভোট পড়েছে প্রায় ১৮ শতাংশ। ওই কেন্দ্রে মোট ভোটার ২ হাজার ৬১৯। ওই কেন্দ্রের পাশেই অবস্থিত পুঁইয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে বুথগুলোর সামনে ৪-৫ জন করে ভোটারের সারি দেখা যায়। দুপুর ১২টা পর্যন্ত ওই কেন্দ্রে ভোট পড়েছে ৪৩১টি। ওই কেন্দ্রের মোট ভোটার ২ হাজার ৪২৭।

দুপুর ১টা থেকে ২টা পর্যন্ত পত্নীতলা উপজেলার পত্নীতলা উচ্চবিদ্যালয়, পত্নীতলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, মধইল উচ্চবিদ্যালয় ও মধুইল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোটার উপস্থিতি কম দেখা যায়। এসব কেন্দ্রে দুপুর ২টা পর্যন্ত ২০ থেকে ২২ শতাংশ ভোট পড়ার তথ্য জানিয়েছেন সংশ্লিষ্ট প্রিসাইডিং কর্মকর্তারা।তবে সরেজমিন ঘুরে সাপাহার উপজেলার কেন্দ্রগুলোতে ভোটার উপস্থিতি কিছুটা বেশি ছিল। সাপাহারের পাতাড়ী সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসা, বৈকুণ্ঠপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও রামাশ্রম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে বিকেল ৩টা পর্যন্ত ২৬ থেকে ৩০ শতাংশ ভোট পড়েছে।

বৈকুণ্ঠপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিসাডিং কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম জানান, তাঁর কেন্দ্রে মোট ভোটার ২ হাজার ৭৭৯ জন। বিকেল ৩টা পর্যন্ত ভোট পড়েছে ৮৩৫ টি। প্রায় ৩০ শতাংশ ভোট পড়েছে।এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ শেষে ভোট গণনা চলছিল।

জেলা প্রশাসক মিজানুর রহমান বলেন, কিছু কেন্দ্রে ভোটার উপস্থিতি কম, আবার কিছু কেন্দ্রে ভোটার উপস্থিতি ভালো ছিল। ভোটাররা উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট দিয়েছে। নওগাঁর কোথাও কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি।

জেলা নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, দ্বিতীয় ধাপের উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে গতকাল নওগাঁর ১১টি উপজেলার মধ্যে ১০টি উপজেলায় ভোট অনুষ্ঠিত হয়। নওগাঁ সদর উপজেলায় চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা চেয়ারম্যান পদে একজন করে প্রার্থী থাকায় একক প্রার্থীদের আগেই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় বিজয়ী ঘোষণা করা হয়েছে। অন্য ১০টি উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে ৩৫ জন, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪০ জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ২৮ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন।২০১৪ সালের উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে নওগাঁর ১১টি উপজেলায় বিএনপি পাঁচটিতে, আওয়ামী লীগ চারটিতে ও জামায়াত সমর্থিত দুই প্রার্থী চেয়ারম্যান পদে বিজয়ী হন।#





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

নির্বাচন বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৫৮৩ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই