তারিখ : ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২০, মঙ্গলবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

সখীপুরের ওসি ঢাকা রেঞ্জের শ্রেষ্ঠ কর্মকর্তা

সখীপুরের ওসি (তদন্ত) এএইচএম লুৎফুল কবির হলেন ঢাকা রেঞ্জের শ্রেষ্ঠ তদন্তকারী কর্মকর্তা
[ভালুকা ডট কম : ২৩ ডিসেম্বর]
ক্লু-লেস হত্যা মামলার আসামী গ্রেফতার ও আদালতে আসামীর স্বীকারোক্তি মুলক জবানবন্দী প্রদান এবং রহস্য উদঘাটন করায় সখীপুর থানার  পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) এএইচএম লুৎফুল কবীরকে ঢাকা রেঞ্জের শ্রেষ্ঠ তদন্তকারী কর্মকর্তার সম্মাননা  দেওয়া হয়েছে।

রবিবার বিকেলে ঢাকা রেঞ্জ’র ডিআইজি মো. হাবিবুর রহমান এ সম্মাননা সনদ  তুলে দেন । এ সময় এডিশনাল ডিআইজি আসাদুজ্জামান, টাঙ্গাইল জেলা পুলিশ সুপার সঞ্জিত কুমার রায়সহ পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত: গত ৯ জুলাই  রাতে হাতিবান্ধা মধ্যপাড়া গ্রামে ঘরে  সিঁধ কেঁটে সমলা ভানু নামের এক মহিলাকে খুন এবং ঘর হইতে স্বর্ণালংকার, নগদ টাকা চুরি  সংক্রান্তে অজ্ঞাতনামা আসামীদের বিরুদ্ধে সখীপুর থানায় মামলা করেন নিহতের ছেলে। পরবর্তীতে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সখীপুর থানার ইন্সপেক্টর (তদন্ত) এএইচএম লুৎফল কবির তার বিভিন্ন সোর্স, প্রর্যবেক্ষণ এবং বিচক্ষণতায় অবশেষে সিরিয়াল কিলার মোঃ আনোয়ার হোসেন ওরফে বাবু শেখ এবং কালু ওরফে বাবু প্রামাণিককে গ্রেফতার করে। এতে  ওই হত্যাসহ আরো ৯টি হত্যা কান্ডের মূল রহস্য উদঘাটিত হয়। পরে গ্রেফতারকৃতদের গত ২৭ নভেম্বর   বিজ্ঞ আদালতে সোপর্দ করা হলে তারা স্বেচ্ছায় দোষ স্বীকার করে  ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী দেয়। তাদের স্বীকারোক্তিতে বেরিয়ে আসে নানা লোমহর্ষক কাহিনী। বাবু শেখ একজন সিরিয়াল কিলার। পরপর ৯টি হত্যা কান্ড সে নিজ হাতে করেছে। এর মধ্যে ৬টি হত্যাকান্ডের আগে সে ৬জন নারীকে ধর্ষণ করে এবং হত্যা করে।#





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

ভালুকার বাইরে বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ১২৩১ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই