তারিখ : ৩০ জুলাই ২০২১, শুক্রবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

টিকা সংকট নিয়ে যা বললেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

টিকা সংকট নিয়ে যা বললেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী
[ভালুকা ডট কম : ১০ জুন]
সিলেট অঞ্চলে প্রচলিত একটি প্রবচন হচ্ছে “ দিবো দিবো কয়, দেয়তো না; একখান কতা বালা আছে, না তো করে না’ কোন বিষয়ে ওয়াদা করে কথা না রাখলে বা টালবাহানা করলে এ প্রবাদটি উচ্চারণ করা হয়।

সিলেটের অধিবাসী পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডঃ  এ কে আব্দুল মোমেন ঠিক এরকম একটি পরিস্থিতিতে  আজ  বলেছেন, বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের অক্সফোর্ড অ্যাস্ট্রাজেনেকার দ্বিতীয় ডোজের টিকার ঘাটতি পূরণের জন্য বিভিন্ন দেশকে টিকা পাঠাতে অনুরোধ জানানো হয়েছে। সবাই টিকা দেবে বলে। কিন্তু হাতে আসছে না। আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় ফিলিস্তিনের রাষ্ট্রদূতের কাছে কিছু ওষুধপত্র  হস্তান্তর অনুষ্ঠান শেষে  পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেছেন,করোনাকালে আমরা অনেক দেশকে সহযোগিতা করেছি। তবে সেটা করেছি সরকার থেকে। আর ফিলিস্তিনকে সরকার ও জনগণের পক্ষ থেকে সহায়তা করছি। ফিলিস্তিনের জনগণের ওপর দখলদার বাহিনীর হামলাকে আমরা সমর্থন করি না। এ জন্য বারবার অনুরোধের পরও আমরা ইসরায়েলকে স্বীকৃতি দিই না। দুই রাষ্ট্র নীতিতে এর সমাধান চাই।

দেশে করোনা ভেকসিন সঙ্কট  নিয়ে পররাষ্ট্র মন্ত্রী জানান,যুক্তরাষ্ট্রের কাছে অনেক অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা আছে জেনে সঙ্গে সঙ্গে তাদের অনুরোধ জানালাম। পরে জানা গেল,  করোনাভাইরাসে মৃত্যুর সংখ্যা কম থাকায় বাংলাদেশ টিকা প্রাপ্তির দেশগুলো অগ্রাধিকারের তালিকায় নেই। তবে যুক্তরাষ্ট্রের কাছ থেকে টিকা পাওয়ার ব্যাপারে আশাবাদী।

পররাষ্ট্র মন্ত্রী জানান, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ মোকাবিলায় চীনের ক্ষমতাসীন কমিউনিস্ট পার্টি বাংলাদেশের ক্ষমাসীন আওয়ামী লীগকে চিকিৎসাসামগ্রী দিচ্ছে। আগামী  ১৩ জুন এই চিকিৎসাসামগ্রী ঢাকায় আনা হবে। চীনের উপহারের ৬ লাখ ডোজ টিকা আনতে দুটি সি-১৩০ প্লেন পাঠানো হচ্ছে। চীনা কমিউনিস্ট পার্টি আওয়ামী লীগকে বিভিন্ন ধরনের মেডিকেল ইকুইপমেন্ট দিচ্ছে। টিকা বোঝাই হবার পর পর প্লেনে যে জায়গা থাকবে, সেটি পুরোটা ভরে নিয়ে আসবে।

উল্লেখ্য, চীন গত ১২ মে সিনোফার্মের তৈরি পাঁচ লাখ উপহারের টিকা বাংলাদেশে পাঠায়। তার ৯ দিনের মাথায় চীন দ্বিতীয় দফায় টিকা উপহারের ঘোষণা দেয়।তাছাড়া, ঢাকায় চীনের দূতাবাস থেকে পাঠান এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা বাংলাদেশে জরুরি ভিত্তিতে টিকার বিপুল চাহিদার প্রেক্ষাপটে সরবরাহের ঘাটতির বিষয়ে চীন উদ্বিগ্ন।  দ্বিতীয় দফায় টিকা উপহারের ঘোষণা বাংলাদেশের প্রতি চীনের বন্ধুত্বের নিদর্শন।

এ দিকে গত ২৫ মে থেকে দেশে চীনের সিনোফার্মার টিকার পর্যবেক্ষণমূলক প্রয়োগ শুরু হয়েছে। এ পর্যন্ত এ টিকার প্রথম ডোজ নিয়েছে দুই হাজার ১৪২ জন। এদের মধ্যে এক হাজার ৫৭০ জন পুরুষ ও ৫৭২ জন নারী।স্বাস্থ্য অধিদফতর জানায়, দেশে এখন অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা কোভিশিল্ডের প্রথম ডোজ দেয়া বন্ধ থাকলেও গত ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে পাঁচ হাজার ২৮৭ জন টিকার দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণ করেছেন।




সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

অন্যান্য বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ১৩১৩ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই