তারিখ : ২০ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, মঙ্গলবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

সূর্যমুখী ফুলের হাসিতে কৃষকদের মুখে হাসি

সূর্যমুখী ফুলের হাসিতে নওগাঁর কৃষকদের মুখে হাসি ফুটেছে
[ভালুকা ডট কম : ০৮ মার্চ]
সূর্যমুখী ফুলের হাসিতে ফুটে উঠেছে নওগাঁর মাঠগুলো। দ্বিতীয়বারের মতো কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের সার ও বীজ প্রণোদনার মাধ্যমে চাষ হচ্ছে সূর্যমুখী ফুলের। আবহাওয়া এখন পর্যন্ত অনুকূলে থাকায় কৃষকরা সূর্যমুখী ফুলের বাম্পার ফলনের আশা করছেন। বর্তমানে সূর্যমুখীর অধিকাংশ গাছেই ফুল ফুটেছে। যার কারণে সূর্যমুখি ফুলের হাসিতে অধিক লাভের আশায় কৃষকদের মুখেও হাসি ফুটেছে।

জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, জেলার ১১টি উপজেলায় ৭৫হেক্টর জমিতে এই ফসলের চাষ হয়েছে যা গতবছর ছিলো মাত্র ৬০হেক্টর জমি। বর্তমানে একঘেয়েমী ধান চাষ করে কৃষকরা তেমন একটা লাভবান হচ্ছেন না। ধান চাষ করতে যে পরিমাণ টাকা খরচ হয় সেই টাকার ধান পাওয়া যায় না। তাই অন্যান্য ফসলের চেয়ে সূর্যমুখী চাষে বেশি লাভের প্রত্যাশা অনেক বেশি। সূর্যমুখী ফুলের চাষ করলে ফুল থেকে তেল, খৈল ও জ্বালানি পাওয়া যায়। প্রতি কেজি বীজ থেকে কমপক্ষে আধা লিটার তৈল উৎপাদন সম্ভব আর প্রতি বিঘা জমিতে ৭মণ থেকে ১০মণ বীজ উৎপাদন হয়। তেল উৎপাদন হবে প্রতি বিঘায় ১৪০লিটার থেকে ২০০লিটার পর্যন্ত। প্রতি লিটার তেলের বাজার সর্বনিম্ন বাজার মূল্য প্রায় ৩০০টাকা। প্রতি বিঘা জমিতে খরচ হয় সর্বোচ্চ সাড়ে ৩হাজার টাকা। আর প্রতিবিঘা থেকে উৎপাদিত সূর্যমুখি ফুলের বীজ থেকে আয় করা সম্ভব ২৫-৩০হাজার টাকা। বর্তমানে বাজারে ভোজ্য তেলের আকাশ ছোঁয়া দাম হওয়ার কারণে চাহিদা বেড়েছে সরিষা ও সূর্যমুখী বীজের তেলের। এছাড়া সূর্যমুখী ফুলের তেল অধিক পুষ্টিগুণ সম্পন্ন। তাই ডায়াবেটিস ও হৃদরোগীদের জন্য এই তেল অন্যান্য তেলের চেয়ে অনেক উপকারী ও স্বাস্থ্য সম্মত।  

সূর্যমুখি ফুলচাষী রাণীনগর উপজেলার মধ্যরাজাপুর গ্রামের নুরুল ইসলাম নয়ন বলেন গত বছর অল্প পরিমাণ জমিতে প্রথমবারের মতো সূর্যমুখী ফুলের চাষ করে আমি অনেক লাভবান হয়েছি। তাই চলতি মৌসুমে কৃষি অফিসের সহযোগিতায় জমি লিজ নিয়ে মোট ৩বিঘা জমিতে সূর্যমুখী ফুলের চাষ করেছি। এটি খুবই লাভজনক একটি ফসল। আমি আগামী বছর ১০বিঘা জমি লিজ নিয়ে সূর্যমুখী ফুলের চাষ করবো বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আমাকে দেখে এলাকার অনেক কৃষকরা সূর্যমূখী ফুলের চাষে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন।

একই গ্রামের আরেক কৃষক আফতাব উদ্দিন বলেন, নয়নের দেখাদেখি চলতি মৌসুমে আমিও কিছু জমিতে এই আবাদ করেছি। তবে আগামী বছর কৃষি অফিসের সহযোগিতা নিয়ে ধানের পরিবর্তে সূর্যমুখী ফুলের চাষ করবো। এটি শুধু একটি ফসলই নয় জমিতে এসে অনেক মানুষ বিনোদনও নিচ্ছে। আবার অনেকে পরিবারের সদস্যদের জমিতে এনে ছবি তুলে আনন্দ নিচ্ছেন।

উপ-সহকারি কৃষি কর্মকর্তা মোছা. মিলি আক্তার বলেন সুর্যমুখি চাষে সার ও কীটনাশকের ব্যবহার খুবই কম করতে হয়। যার কারণে অল্প খরচে অধিক লাভ করা সম্ভব। এছাড়া এই ফসলে পোকা ও মাকড়ের আক্রমণ নেই বললেই চলে। আর আমরা সবসময় সূর্যমুখি ফুলের আবাদ পর্যবেক্ষণ করছি এবং কৃষকদের সার্বিক পরামর্শসহ সহযোগিতা প্রদান করে আসছি। আবার সেচ না দিলেও কোন সমস্যা হয় না। এককথায় কম খরচে, কম সময়ে ও কম পরিশ্রমে অধিক লাভবান হতে হলে সূর্যমুখি ফুল চাষের কোন বিকল্প নেই। এছাড়া এই ফুলের বীজ থেকে উৎপাদিত অধিক পুষ্টিগুন সম্পন্ন তেলের মাধ্যমে নিজেদের চাহিদা পূরণ করাও সম্ভব।

রাণীনগর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ শহীদুল ইসলাম বলেন, সূর্যমুখীর বীজ থেকে যে তেল হয় তা স্বাস্থ্যসম্মত ও মানসম্পন্ন। অলিভ ওয়েলের পরেই সূর্যমুখী তেলের অবস্থান। সোয়াবিন ও সরিষা ভোজ্য তেলের ঘাটতি পূরণ করবে সূর্যমুখী তেল। যার কারণে বেশি লাভজনক ফসল এই সূর্যমুখী। আগামীতে এই উপজেলায় সূর্যমুখী ফুলের চাষ আরও সম্প্রসারিত হবে বলে আমি আশাবাদী।

জেলা কৃষি প্রশিক্ষণ কর্মকর্তা একেএম মনজুরে মাওলা বলেন নিজেদের উৎপাদিত বিভিন্ন তেল জাতীয় ফসল থেকে অভ্যন্তরীন তেলের চাহিদা পূরণ করার জন্য সরকার যে উদ্যোগ গ্রহণ করেছে তা সফল করতে আমরা কৃষি বিভাগের পক্ষ থেকে মাঠ পর্যায়ের কৃষকদের নানা ভাবে উদ্বুদ্ধ করে আসছি। যার ফলে চলতি মৌসুমে জেরায় রেকর্ড পরিমাণ জমিতে সরিষার চাষ হয়েছিলো। সরিষা চাষে কৃষকরা অভাবনীয় লাভবানও হয়েছেন। তাই বাজারে সূর্যমুখি বীজের চাহিদা থাকার কারণে এবার লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে বেশি জমিতে সূর্যমুখি ফুলের চাষ হয়েছে। আমি আশাবাদি আগামীতে এই জেলাসহ দেশের সকল স্থানে এই সূর্যমুখি ফুলের চাষ অনেক বৃদ্ধি পাবে।#



সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

কৃষি/শিল্প বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৮৯০৪ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই