তারিখ : ০২ জুন ২০২০, মঙ্গলবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

মনপুরা হাসপাতালে করোনা মোকাবেলায় নেই কোন উপকরণ

মনপুরা হাসপাতালে করোনা মোকাবেলায় নেই কোন উপকরণ, ডাক্তার-নার্সদের জন্য নেই পিপিই
[ভালুকা ডট কম : ২৩ মার্চ]
ভোলার মনপুরায় দেড় লক্ষ মানুষের স্বাস্থ্য সেবার জন্য রয়েছে একটিমাত্র হাসপাতাল। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সটি ৫০ শয্যাবিশিষ্ট হলেও প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় নেই কোন উপকরণ। এমনকি কর্মরত চিকিৎসক, নার্স ও অন্যান্য স্বাস্থ্য কর্মীদের জন্য মাস্ক, গাউন ও হ্যান্ডগ্লোবস (পিপিই) নেই। ভয়ে ভয়ে রোগিদের চিকিসা দিচ্ছেন কর্তব্যরত চিকিৎসক ও নার্সরা।

এদিকে হাসপাতালে আসা রোগিদের সুরক্ষার জন্য পানি ও সাবান দিয়ে হাত ধোয়ার ব্যবস্থা নেই। এছাড়াও রোগিদের হাতে জীবাণুনাশক স্প্রে করার ব্যবস্থা নেই। এতে যে কোন সময় করোনা আক্রান্ত রোগির সংর্স্পশে ডাক্তার-নার্স ও সেবা নিতে আসা রোগীদের মধ্যে ভাইরাসটি ছড়িয়ে পরার আশংকায় আতঙ্কিত রয়েছেন কর্তব্যরত চিকিৎসক ও স্থানীয়রা।পানি সংকটের কারনে হাত ধোয়ার ব্যবস্থা করা হয়নি ও জীবানুনাশক স্প্রে নেই বলে স্বীকার করেছেন মনপুরা উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ মাহমুদুর রশীদ।

জানা যায়, স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আইসিও বেড, ভেন্টিলেটর ও পরীক্ষাগার নেই। নামমাত্র ৩ বেডের একটি আইসোলেশন ওয়ার্ড করা হয়েছে। ওই আইসোলেশন কক্ষে তিনটি বেড ছাড়া কিছুই নেই। কর্তব্যরত চিকিৎসক, নার্স, স্বাস্থ্য কর্মীদের পিপিই নেই। এছাড়াও করোনা মোকাবেলার উপকরণ নেই। এখন পর্যন্ত করোনা পরীক্ষা করার কোন কীট হাসপাতালে আসেনি।

এব্যাপারে উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ মাহমুদুর রশীদ জানান, করোনা মোকাবেলার উপকরণ দ্রুত পেয়ে যাবো। চাহিদা পাঠানো হয়েছে। করোনা রোগিদের জন্য একটি আইসোলেশন কক্ষ প্রস্তুত রয়েছে। এছাড়াও প্রতিদিন বাজারে বাজারে জনসাধারনের মধ্যে সচেতনতা সৃষ্টিতে মাইকিং করা হচ্ছে।#





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

স্বাস্থ্য বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ১২৬২ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই