তারিখ : ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, সোমবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

নান্দাইলে ধান,মাছ নিয়ে গেছে সন্ত্রাসীরা

আদালতের স্থিতাবস্থা থাকার পরেও
নান্দাইলে জমির ধান ও পুকুরের মাছ ধরে নিয়ে গেছে সন্ত্রাসীরা
[ভালুকা ডট কম : ২১ নভেম্বর]
ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার ৫নং গাংগাইল ইউনিয়নের কান্দিউড়া গ্রামের ধান জমি ও পুকুরের মাছ ধরে নিয়ে গেছে কান্দিউড়া গ্রামের কাশেম আলীগংরা। গয়েশপুর গ্রামের মোছাঃ আয়শা আক্তার জেলা ময়মনসিংহের বিজ্ঞ সিনিয়র সহকারী জজ আদালতে মোকদ্দমা নং- ২০৩/২০২৩ অন্য প্রকার চলমান থাকা অবস্থায় বিজ্ঞ সহকারী জজ দিদারুল ইসলাম বিগত ২৯ সেপ্টেম্বর উক্ত জমি ও পুকুরের দখলের উপর নালিশি ভূমিতে উভয় পক্ষকে স্থিতাবস্থা বজায় রাখার নির্দেশ প্রদান করেন।

বিজ্ঞ আদালত থেকে নির্দেশের কপি উভয় পক্ষকে অবহিত করা হয়। শনিবার (১৮ নভেম্বর) গয়েশপুর গ্রামের লাল মিয়া, সবুজ মিয়া এবং কান্দিউড়া গ্রামের কাশেম আলী গং সহ ২০ জনের নামে গয়েশপুর গ্রামের আবু সালেকের স্ত্রী মোছাঃ আয়শা আক্তার মামলাটি দায়ের করেন। দীর্ঘদিন ধরে আদালতে মামলা মোকদ্দমা চলা অবস্থায় একাধিক বার নান্দাইল মডেল থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। বাদী আয়শা আক্তার অভিযোগ করেন পুলিশ কার্য্যকরি ভূমিকা পালন না করায় বিবাদীপক্ষ ফসলী জমি থেকে পাকা ধান কেটে নিয়ে যায় এবং নিজস্ব পুকুর থেকে আনুমানিক লক্ষাধিক টাকার দেশীয় প্রজাতির মাছ জোরপূর্বক জাল দিয়ে ধরে নিয়ে যায়।

বর্তমানে উল্লেখিত ফসলী জমি ও পুকুরের দখল নিয়ে উভয় পক্ষের মাঝে যে কোন সময় রক্ষক্ষয়ী মারামারি এবং খুন খারাবী হওয়ার সমূহ সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে। মামলার বাদীনী আদালতের স্থিতাবস্থার আদেশ যথাযথভাবে বাস্তবায়ন করার জন্য নান্দাইল মডেল থানার পুলিশ কর্তৃপক্ষ বরাবর জোর দাবী জানিয়েছেন। মামলার বাদীনী উল্লেখিত ঘটনায় নতুন করে মামলা দায়ের করবেন বলে জানান। এছাড়া আদালত অবমাননার দায়ে আরও একটি মামলা দায়ের করবেন বলে জানান।#



নান্দাইলের কালিগঞ্জ বাজারে সরকারী জায়গা থেকে ৫০ হাজার টাকা মূল্যের ২টি গাছ কর্তন
ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার রাজগাতী ইউনিয়নের কালীগঞ্জ বাজার এলাকায় সরকারী খালের পাড় থেকে প্রায় ৫০ হাজার টাকা মূল্যের ২টি রেনট্রি গাছ কাশিনগর গ্রামের মোঃ মনতু মিয়া ও রতন মিয়া কর্তৃক কর্তন করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। সোমবার (২০ নভেম্বর) সকাল থেকে উল্লেখিত ব্যক্তিরা সরকারী গাছ কেটে নেয়।

গাছ কেটে নেবার বিষয়টি নান্দাইল উপজেলা নির্বাহী অফিসার অরুণ কৃঞ্চ পালকে অবহিত করলে তিনি সাথে সাথে রাজগাতী ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তাকে ঘটনাস্থলে পাঠিয়ে গাছ কাটার বিষয়টি নিশ্চিত হন। সহকারী ভূমি কর্মকর্তা মুনতু ও রতনকে গাছ কাটা বন্ধ করার জন্য নিবার্হী কর্মকর্তার নির্দেশ জানিয়েদেন।

রাজগাতী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ইফতেকার মোমতাজ খোকন জানান, সোমবার সকালে এলাকা থেকে সরকারী গাছ কাটার বিষয়টি তাকে জানানো হলে তিনি বিষয়টি উপজেলা প্রশাসনকে অবহিত করেন। স্থানীয় মিডিয়া কর্মীরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে সরকারী খালের জায়গা থেকে গাছ কাটার বিষয়টি সত্যতা পান। সরকারী গাছ কর্তনের অভিযোগে দায়ী মনতু ও রতনের বিরুদ্ধে দ্রুত আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য কালীগঞ্জ বাজারের ব্যবসায়ীগন দাবী জানিয়েছেন।#



সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

জীবন যাত্রা বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৮৯০৫ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই